,

ThemesBazar.Com

খালেদা জিয়ার সাজা বৃদ্ধি চেয়ে হাইকোর্টে আবেদন

Spread the love

জিয়া অরফানেজ ট্রাস্ট মামলায় বিএনপির চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার সাজা বৃদ্ধি চেয়ে হাইকোর্টে আবেদন করেছে দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক)। আগামী মঙ্গলবার শুনানির জন্য আবেদনটি আদালতে কার্যতালিকায় আসবে বলে জানা গেছে।

২৫ মার্চ, রবিবার সকাল দশটার দিকে দুদকের আইনজীবী খুরশীদ আলম খান প্রিয়.কমকে আপিলের বিষয়টি নিশ্চিত করেন।

খুরশীদ আলম খান বলেন, ‘এ মামলায় খালেদা জিয়াকে অপর্যাপ্ত সাজার বিষয়ে আমি ব্যাখা দিয়েছি। আদালতে বোঝাতে চেষ্টা করেছি এ মামলায় বিচারিক আদালত খালেদা জিয়াকে কম সাজা দিয়েছে। সাজা বাড়ানো দরকার।

আজকে আমরা দুদকের পক্ষে সকালে সুপ্রিম কোর্টের সংশ্লিষ্ট শাখায় আপিল আবেদন করেছি। আগামী মঙ্গলবার আবেদনটি শুনানির জন্য আদালতের কার্যতালিকায় আসবে।’

গত ৮ ফেব্রুয়ারি জিয়া অরফানেজ ট্রাস্ট মামলায় বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়াকে পাঁচ বছরের কারাদণ্ড দেন নিম্ন আদালত। এ মামলায় বিএনপির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমানসহ বাকি পাঁচজনকে ১০ বছরের সশ্রম কারাদণ্ড দেওয়া হয়েছে। একই সঙ্গে তাদের দুই কোটি ১০ লাখ ৭১ হাজার ৬৪৩ টাকা জরিমানাও করেন আদালত।

রায় ঘোষণার পর থেকেই পুরান ঢাকার নাজিম উদ্দিন রোডের কারাগারে রয়েছেন খালেদা জিয়া।

রায়ের বিরুদ্ধে গত ২০ ফেব্রুয়ারি হাইকোর্টে আপিল করেন খালেদা জিয়া। একই সঙ্গে জামিনও চান বিএনপির চেয়ারপারসন। পরে খালেদা জিয়ার আপিল শুনানির জন্য গ্রহণ করেন বিচারপতি এম ইনায়েতুর রহিম ও বিচারপতি সহিদুল করিমের হাইকোর্ট বেঞ্চ। ১২ মার্চ শুনানি শেষে আদালত খালেদা জিয়াকে চার মাসের অন্তবর্তীকালীন জামিন দেন।

১৩ মার্চ খালেদা জিয়ার জামিন স্থগিত চেয়ে চেম্বার আদালতে আবেদন করে দুদক ও রাষ্ট্রপক্ষ। শুনানি শেষে ১৪ মার্চ পর্যন্ত খালেদা জিয়াকে হাইকোর্টের দেওয়া জামিন আদেশ স্থগিত করেন চেম্বার বিচারপতি হাসান ফয়েজ সিদ্দিকী। তিনি আপিল বিভাগের পূর্ণাঙ্গ বেঞ্চে শুনানির জন্য ১৪ মার্চ দিন নির্ধারণ করেন।

১৪ মার্চ প্রধান বিচারপতি সৈয়দ মাহমুদ হোসেনের নেতৃত্বাধীন চার বিচারপতির আপিল বেঞ্চ ১৮ মার্চ পর্যন্ত খালেদা জিয়ার জামিন স্থগিত করে দুদক ও রাষ্ট্রপক্ষকে লিভ টু আপিল করতে আদেশ দেন। ১৮ মার্চ এ মামলার শুনানি করে দুদক ও রাষ্ট্রপক্ষের লিভ টু আপিল গ্রহণ করেন আপিল বিভাগ। একই সঙ্গে  ৮ মে পর্যন্ত খালেদা জিয়ার জামিন স্থগিত করা হয়।

১৮ মার্চ, সোমবার এ মামলার শুনানি করে দুদক ও রাষ্ট্রপক্ষের লিভ টু আপিল গ্রহণ করেন আপিল বিভাগ। পাশাপাশি আগামী ৮ মে পর্যন্ত খালেদা জিয়ার জামিন স্থগিত করেন আদালত।

Print Friendly, PDF & Email

ThemesBazar.Com

      আরো পড়ুন