বিচ্ছেদের পর ৮৯০ কেজি কয়েনে স্ত্রীকে খোরপোষ!

কাউকে হয়রানি করলে কত ভাবেই না করা যায়। আর এক সময়ের জীবনসঙ্গীর সাথে এমনটা করলে সেটাতো আর বেদনাদায়কই হয়। এমনই এক কাণ্ড ঘটিয়েছেন ইন্দোনেশিয়ার এক সরকারি কর্মকর্তা। বিচ্ছেদের পর শুধু ধাতব মুদ্রা তথা কয়েন দিয়ে সাবেক স্ত্রীর খোরপোষ মিটিয়েছেন তিনি।

তবে কয়েনের পরিমাণটা শুনলে যে কেউ স্তম্ভিত হতে পারেন। গুনে গুনে প্রায় ১০ হাজার ডলার খোরপোষ দেয়া হয়েছে ৮৯০ কেজি কয়েনে। এতে ক্ষুব্ধ সাবেক স্ত্রী এনেছেন মানহানির অভিযোগ।

ইন্দোনেশিয়ার জাভায় বৃহস্পতিবার এ ঘটনা ঘটেছে। দেশটির এক সরকারি কর্মকর্তা তার সাবেক স্ত্রীকে খোরপোষ দেয়ার সময় এই কাণ্ড করেছেন। বিচ্ছেদের পর সাবেক স্ত্রীকে বড় অংকের খোরপোষ দিতে ওই সরকারি কর্মকর্তাকে নির্দেশ দিয়েছিল আদালত।

সাবেক স্ত্রীর খোরপোষ পরিশোধ করতে গিয়ে ১০ হাজার ডলার মূল্যমানের কয়েন নিয়ে হাজির হন ডুই সুসিলার্তো নামের ওই সরকারি কর্মকর্তা। প্রায় ১২ বস্তায় কয়েন ভর্তি করে নিয়ে আসেন তিনি। এর ওজন ছিল ৮৯০ কেজির মতো।

কয়েনে খোরপোষ দেয়ার ঘটনায় আদালতে দুই পক্ষের মধ্যে হাতাহাতির উপক্রম হয়েছিল। কারণ, ওই নারীর আইনজীবী এত বিপুল পরিমাণ কয়েন গুনতে অস্বীকৃতি জানান। পরে আদালতের কর্মচারীদের কয়েন গুনতে নির্দেশ দেন বিচারক।

সুসিলার্তোর সাবেক স্ত্রী ক্ষোভ প্রকাশ করে বলেছেন, ‘এটি অপমানজনক, অনেকটা আমাকে গরিব বলে ডাকার মতো।’

তবে সাবেক স্বামীর আইনজীবী এ অভিযোগ অস্বীকার করে বলেছেন, ‘আমার মক্কেল তার সাবেক স্ত্রীকে অপমান করতে চাননি। খোরপোষ পরিশোধ করতে পরিবার ও বন্ধুদের কাছ থেকে এই অর্থ এনেছেন তিনি।’

শর্টলিংকঃ

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *